হোম বাংলার সংবাদ দিঘলিয়ায় হত্যা মামলার আসামী পিটালেন আপন বড় ভাইকে।।

দিঘলিয়ায় হত্যা মামলার আসামী পিটালেন আপন বড় ভাইকে।।

ওয়াসিক রাজিব দিঘলিয়া প্রতিনিধি 13 Jun, 2021 9:16 PM

দিঘলিয়ায়-হত্যা-মামলার-আসামী-পিটালেন-আপন-বড়-ভাইকে।।-2021-06-13-60c6134e6bca7.jpg

দিঘলিয়ার চাঞ্চল্যকর হত্যা মামলার আসামি ও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শেখ মনিরুল ইসলাম এবার পেটালেন আপন বড় ভাইয়ের স্ত্রীকে। এ বিষয়ে দিঘলিয়া থানায় লিখত অভিযোগ দাখিল করেছেন ভুক্তভোগী। এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক, দিঘলিয়া উপজেলার সেনহাটী ইউনিয়নের প্রয়াত চেয়ারম্যান গাজী আব্দুল হালিম হত্যা মামলার আসামি ও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শেখ মনিরুল ইসলাম সেনহাটী ইউনিয়নের বাসিন্দা।

তার বড় ভাই কামরুল অসুস্থ থাকায় তার স্ত্রী দীর্ঘদিন ধরে জমি ভাগ করে দেওয়ার কথা বলে আসছেন কিন্তু বিষয়টি কর্ণপাত করছেন না মনির।

গত শনিবার সকালে সেনহাটী বাজারে বাদলের ঔষধের দোকানের সামনে বসা ছিল হত্যা মামলার আসামি ও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শেখ মনিরুল ইসলাম সেখানে তার বড় ভাইয়ের স্ত্রী উপস্থিত হয়ে জমি সংক্রান্ত বিষয় কথা বলা মাত্রই মনির উত্তেজিত হয়ে ভাইয়ের স্ত্রীকে ঘুষি মারে বলে জানা যায়।

বাদল ফার্মেসীর মালিক জানায় উভয়ের মধ্যে উতপ্ত বাক্য বিনিময় হয়। মনিরুল ইসলামের ভাইয়ের স্ত্রী ফারজানা বেগম বাদী হয়ে দিঘলিয়া থানায় লিখত অভিযোগ দাখিল করেছেন। ফারজানার স্বামী কামরুল বলেন এটা আমাদের পারিবারিক বিষয়।

সেনহাটী পুলিশ ফাঁড়ীর আইসি নিপুন বোস জানায়, জমি সংক্রান্ত বিষয় মনিরুল ইসলাম তার ভাইয়ের স্ত্রীকে মেরেছে এমন একটি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থাগ্রহণ করা হবে।

উল্লেখ্য, খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মরহুম গাজী আব্দুল হালিম ২০১১সালে ২নভেম্বার আততয়ীর গুলিতে আহত হয়ে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। তার স্ত্রী ফারহানা হালিম বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন ঐ মামলায় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শেখ মনিরুল ইসলামকে আসামি করা হয়। পরবর্তী সময়ে বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার চার্জসিট ভূক্ত আসামি রয়েছেন তিনি।


আরও :

আমাদের সাথে যুক্ত থাকুন

আরও সংবাদ